প্রচ্ছদ / আধুনিক মাসায়েল / মহিলারা ন্যাশনাল আইডি কার্ড করতে ছবি তুলতে পারবে?

মহিলারা ন্যাশনাল আইডি কার্ড করতে ছবি তুলতে পারবে?

প্রশ্ন

মোঃ ইলিয়াস

টঙ্গীবাড়ী, মুন্সীগঞ্জ।

প্রশ্নঃ হযরত আমার স্ত্রী পর্দা করে। তার জন্য ভোটার আইডি কার্ড খুব প্রয়োজন। কিন্তু আইডি কার্ড করতে ছবি তোলা লাগে।

এমতাবস্থায় ছবি সংযুক্ত করে ভোটার আইডি কার্ড করা জায়েজ হবে কি?

উত্তর

وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته

بسم الله الرحمن الرحيم

প্রয়োজনীয় হওয়ায় শুধুমাত্র প্রয়োজন এতটুকু ছবি তোলা জায়েজ আছে। অতিরিক্ত ছবি তোলা জায়েজ হবে না।

যেহেতু আইডি কার্ড ছাড়া বাংলাদেশের নাগরিত্বই প্রমাণিত হয় না। তাই এ তীব্র প্রয়োজনের কারণে নারীদের জন্যও ছবি তুলে আইডি কার্ড করা জায়েজ হবে।

 

فَمَنِ اضْطُرَّ غَيْرَ بَاغٍ وَلَا عَادٍ فَإِنَّ اللَّهَ غَفُورٌ رَّحِيمٌ [١٦:١١٥]

অতঃপর কেউ সীমালঙ্ঘন কারী না হয়ে নিরুপায় হয়ে পড়লে তবে, আল্লাহ ক্ষমাশীল, পরম দয়ালু।  [সূরা নাহল-১১৫]

قَاعِدَة الضرورات تبيح الْمَحْظُورَات

তীব্র প্রয়োজন হারামকে হালাল করে দেয়। [কাওয়ায়েদুল ফিক্বহ, কায়দা নং-১৭০]

قَاعِدَة الضرورات تقدر بِقَدرِهَا

জরুরত তার সীমায় সীমিত থাকবে। [কাওয়ায়েদুল ফিক্বহ, কায়দা নং-১৭১]

ইমাম মুহাম্মদ ( রহ.) ‘সিয়ারুল কাবীর ‘গ্রন্থে উল্লেখ করেছেন:

« وإن تحققت الحاجة له الي استعمال السلاح الذي فيه تمثال فلا بأس باستعماله»

যাতে কোনো ছবি অংকিত আছে,এমন কোনো বস্তু ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা দেখা দিলে তা ব্যবহার করা যেতে পারে। এতে কোনো সমস্যা নেই। ‘

ইমাম সারাখসী ( রহ.) এই ভাষ্যের অধীনে তাঁর ব্যাখ্যা গ্রন্থে উল্লেখ করেছেন :

لان مواضع الضرورة مستثناة من الحرمة كما فى تناول الميتة

কেননা প্রয়োজনের মুহুর্তে হারাম-এর হুকুম রহিত হয়ে থাকে, যেমন প্রয়োজন হলে মৃতপ্রাণী আহার করা। [ শরহুস সারাখসী : খণ্ড-২, পৃষ্ঠা- ২৭৮]

ইমাম সারাখসী ( রহ.) একথাও বলতেন :

« إن المسلمين يتبايعون بدراهم الاعاجم فيها التمثال بالتيجان، ولا يمنع احد عن المعاملة بذلك »

নিশ্চয়ই মুসলিম জনগোষ্ঠী অনারবীদের এমন টাকাকড়ির মাধ্যমে বেচাকেনা করে থাকেন, যেসব টাকা-পয়সায় মুকুট পরিহিত সম্রাটের ছবি অংকিত থাকে। এসব টাকা-পয়সার মাধ্যমে লেনদেন করতে কেউ নিষেধ করেন না। [শরহুস সারাখসী :খণ্ড-২,পৃষ্ঠা — ২৭৮]

অন্য একস্থানে তিনি আরো উল্লেখ করেছেন :

« لا بأس بان يحمل الرجل في حال الصلاة دراهم العجم ، وان كان فيها تمثال الملك علي سريره وعليه تاجه»

আজমীদের (অনারবীদের)  টাকা-পয়সা  সঙ্গে নিয়ে মানুষের জন্য নামায আদায়ে কোনো সমস্যা নেই। যদিও সেই টাকা-পয়সায় সিংহাসনে আরোহিত মুকুটধারী সম্রাটের ছবি অংকিত থাকে। ‘[শরহুস সারাখসী:খণ্ড-৩,পৃষ্ঠা-২১২]

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তালীমুল ইসলাম ইনষ্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম সালেহপুর, আমীনবাজার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

আরও জানুন

ইতিকাফ অবস্থায় খানা আনার লোক না থাকলে বাসা বা রেস্টুরেন্টে খানা খেতে যাওয়া যাবে?

প্রশ্ন রমজানে ইতেকাফ রত অবস্থায় খাবার আনার জন্য কেউ না থাকলে মসজিদের কাছের কোনো দোকান …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আহলে হক্ব বাংলা মিডিয়া সার্ভিস