প্রচ্ছদ / কুরবানী/জবেহ/আকীকা / এক গরুতে দুইজনে মিলে ছয় ভাগ রেখে এক ভাগ মৃতের নামে দেয়া জায়েজ ফাতওয়াটি কি দারুল উলুম দেওবন্দের ফাতওয়ার বিপরীত?

এক গরুতে দুইজনে মিলে ছয় ভাগ রেখে এক ভাগ মৃতের নামে দেয়া জায়েজ ফাতওয়াটি কি দারুল উলুম দেওবন্দের ফাতওয়ার বিপরীত?

প্রশ্ন

একটি মাসআলায় এখতেলাফ পেয়ে তার সমাধানের জন্য এই প্রশ্ন।

নিচে দারুল উলুম দেওবন্দের ফতাওয়া দিয়ে দেওয়া হলো ৷

তা’লীমুল ইসলাম ইনস্টিটিউটের ফাতাওয়া

এক গরুতে ছয় ভাগ দুইজন মিলে দিয়ে এক ভাগ মৃত মায়ের নামে কুরবানী দেয়ার হুকুম কী?

প্রশ্ন

From: এনামুল হক কিশোরগন্জ

বিষয়ঃ কুরবানি

প্রশ্নঃ

মাননীয় মুফতি সাহেব, দুই ভাই মিলে একটি গরু কুরবানি দিবে দুজনের হল তিন ভাগ করে আর বাকি এক অংশ দুজনে মিলে মৃত মায়ের নামে দিতে পারবে কিনা?

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

পারবে। কোন সমস্যা নেই। যেহেতু এখানে কারো অংশই এক সপ্তামাংশ থেকে কম নয়। তাই অতিরিক্ত অংশ সবাই মিলে যে কারো নামে কুরবানী দিতে পারবে।

وان مات احد السبعة المشتركين فى البدنة، وقال الورثة اذبحو عنه وعنكم صح عن الكل استحسانا لقصد القربة من الكل، (رد المحتار، كتاب الاضحية- 9/471، الفتاوى الهندية-5/305، البحر الرائق-8/177)

وكذا اذا كان نصيب احدهم اقل من السبع لا يجوز عن الكل لانعدام وصف القربة فى البعض (هداية-4/429)

مَنْ ضَحَّى عَنْ الْمَيِّتِ يَصْنَعُ كَمَا يَصْنَعُ فِي أُضْحِيَّةِ نَفْسِهِ مِنْ التَّصَدُّقِ وَالْأَكْلِ وَالْأَجْرُ لِلْمَيِّتِ وَالْمِلْكُ لِلذَّابِحِ (رد المحتار، كتاب الاضحية-9/472 ، بزازية على الهندية، كتاب الاضحية، السابع فى الاضحية-6/395

والله اعلم بالصواب

উত্তর লিখনে

লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক, তা’লীমুল ইসলাম ইনস্টিটিউ এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

ফাতওয়া লিংক: https://ahlehaqmedia.com/5458-2/

 

দারুল উলুম দেওবন্দের ফাতওয়া

عبادات – ذبیحہ وقربانی

India

سوال # 49286

بعد سلام عرض یہ ہے کہ بڑے جانور میں سات حصے ہوتے ہیں۔جس میں چھ حصے تقسیم ہوگئے ، باقی ایک حصہ جو چند شرکاء کے درمیان ہے ۔ سب شریک ہوکر رسول اللہ صلی اللہ علیہ وسلم کے نام سے قربانی کرنا چاہتے ہیں۔ تو کیا چند لوگ تھوڑے تھوڑے پیسہ دے کر ایک حصہ نبی صلی اللہ علیہ وسلم کے نام سے قربانی کرسکتے ہیں یانہیں؟ اور ایسا کرنا شرعا کیسا ہے ؟ کیونکہ سب لوگ تھوڑے تھوڑے پیسہ دے کر شیئر میں نبی صلی اللہ علیہ وسلم کے نام قربانی کرکے نیکی کمانا چاہتے ہیں۔ امید کہ قرآن وحدیث کی روشنی میں جواب جلد مرحمت فرمائیں۔

Published on: Nov 20, 2013

جواب # 49286

بسم الله الرحمن الرحيم

Fatwa ID: 1881-523/H=1/1435-U

سات آدمیوں سے زیادہ کی شرکت بڑے جانور میں جائز نہیں پس ایک حصہ جو چند آدمی مل کر حضرت نبی اکرم صلی اللہ علیہ تعالیٰ علیہ وسلم کی طرف سے لیں گے تو یہ صورت جائز نہ ہوگی، البتہ ایک حصہ میں چند شرکاء اپنی اپنی رقم کا مالک اپنے میں سے ایک آدمی کو ہبہ کرکے بنادیں اور وہ اپنے قبضہ میں رقم لے کر ایک حصہ لے کر قربانی کردے تو یہ صورت جواز کی ہے۔ حاصل یہ کہ سات شرکاء سے زائد کا ہونا بھی بڑے جانور میں درست نہیں اور یہ بھی درست نہیں کہ ساتوں شرکاء میں سے کسی کا حصہ کم زیادہ ہو اورجب ایک حصہ میں شرکت کرنے والے اپنے میں سے ایک آدمی کو مالک وقابض بنادیں گے تو اگرچہ قربانی تو اس ایک ہی کی طرف سے حضرت نبی اکرم صلی اللہ علیہ وسلم کے لیے ہوگی مگر اپنی اپنی رقم ہبہ کرنے والے ثواب سے محروم نہ ہوں گے۔

واللہ تعالیٰ اعلم

دارالافتاء،
دارالعلوم دیوبند

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

আমাদের প্রকাশিত ফাতওয়া এবং দারুল উলুম দেওবন্দের প্রকাশিত ফাতওয়ার মাঝে কোন বিরোধ নেই।

কারণ, দু’টি সম্পূর্ণ ভিন্ন মাসআলা।

আমাদের উত্তর দেয়া মাসআলাটি ছিল, এক গরু দুই জনে মিলে ক্রয় করে নিজেদের নামে ছয় ভাগ রেখে তারপর এক ভাগ মৃত মায়ের নামে দিয়েছে।

এখানে এক গরুতে সাতজনের উপরে সংখ্যা হচ্ছে না। সাতের নিচেই সদস্য থাকছে। তাই এ কুরবানীটি বিশুদ্ধ।

আর দারুল উলুম দেওবন্দের ফাতওয়ায় উদ্ধৃত প্রশ্ন ছিল, এক গরুতে ছয়জনে ছয় ভাগ নেবার পর, সপ্তম ভাগ অন্য কয়েকজন মিলে রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের নামে দিতে চাচ্ছে।

তাহলে এখানে সাত জনের উপরে ব্যক্তি হয়ে যাচ্ছে।

তাই দারুল উলুমের ফাতওয়ায় এ সূরতকে নাজায়েজ বলা হয়েছে।

সুতরাং যেহেতু প্রশ্ন ও মাসআলার সূরত ভিন্ন হবার কারণে হুকুমও ভিন্ন হয়েছে।

আপনার বুঝতে ভুল হয়েছে। দু’টি ভিন্ন মাসআলাকে এক মনে করেছেন।

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তা’লীমুল ইসলাম ইনস্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

আরও জানুন

পেশাবের দশ পনের মিনিট পর পেশাবের ফোটা আসার সন্দেহ হলে করণীয় কী?

প্রশ্ন From: আব্দুলাহ আনাস বিষয়ঃ পবিত্রতা প্রশ্নঃ আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন হুজুর? এক ব্যক্তি বড় দীর্ঘ দিন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আহলে হক্ব বাংলা মিডিয়া সার্ভিস