হোম / রোযা/তারাবীহ/ইতিকাফ (page 4)

রোযা/তারাবীহ/ইতিকাফ

সেহরী খাবার সময় না পেলে রোযা রাখা যাবে না?

প্রশ্ন From: মোহাম্মদ সোহেল রানা বিষয়ঃ রোযা প্রশ্নঃ প্রশ্নঃ আজকে ভোরে ঘুম থেকে উঠে দেখি ০৪:৪১ মিনিট বাজে, তাই আমি সাথে সাথে রোজার নিয়ত করেছি। কিছু পানাহার করিনি,কারন সেহরির সময় ছিলনা। তো এখন আমার প্রশ্ন হল আমার রোজা হবে কি হবে না? দয়াকরে জানাবেন খুব তারাতারি, অপেক্ষায় রইলাম। উত্তর بسم …

আরো পড়ুন

তারাবীহ নামাযে দরূদ ও দুআয়ে মাসুরা পড়ার কোন প্রয়োজন নেই?

প্রশ্ন From: হামিদুর রহমান জামালপুর বানিয়াচং হবিগঞ্জ সিলেট থেকে বিষয়ঃ তারাবির নামাজে দুরুদ শরীফ দোয়াই মা সুরা না পড়লে কি নামাজ হবে তারাবির নামাজে দুরূদ শরীফ দোয়াই মাসুরা না পড়লে কি নামাজ হবে আমাদের ইমাম সাহেব বললেন দুরূদ শরীফ দোয়াই মাসুরা না পড়লে তারাবির নামাজ হবে এই বিষয়ে আমি জানতে …

আরো পড়ুন

নাক কান ও চোখে ওষুধ প্রবেশ করালে রোযা ভাঙ্গবে কি?

প্রশ্ন From: ডা: শামীম মিসির বিষয়ঃ রোজায় ওষুধ. সেবন রোজা রেখে চোখের, নাকের, কানের ড্রপ দেয়া যাবে কি? উত্তর بسم الله الرحمن الرحيم যদি নাকে, কানে ও চোখে ড্রপের মাধ্যমে ওষুধ দিলে তা খাদ্যনালীতে চলে যায়। তাহলে রোযা ভেঙ্গে যাবে। যদি না যায়, তাহলে ভাঙ্গবে না। তাই রোযা অবস্থায় এসব …

আরো পড়ুন

রোযা অবস্থায় দিনের বেলা স্বপ্নে পানাহার করলে রোযা ভেঙ্গে যাবে কি?

প্রশ্ন From: মোঃ তোফাজ্জল হোসেন বিষয়ঃ রোজার ভঙ্গের কারণ আসসালামুআলাইকুম হুজুর আমি একটা বিষয়ে খুবই চিন্তিত। সেহরি খেয়ে  ঘুমানোর  পর স্বপনে কিছু খেতে দেখলে কি রোজা হবে।আমি প্রায় দুই থেকে তিন স্বপনে খেতে দেখেছি। উত্তর وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته بسم الله الرحمن الرحيم উম্মতীর স্বপ্নের দ্বারা শরীয়তের কোন বিধানই …

আরো পড়ুন

বিতর নামাযে ইমাম দুআয়ে কুনুত না পড়ে রুকুতে চলে গিয়ে মুসল্লিদের তাকবীরে আবার ফিরে আসলে নামাযের হুকুম কী?

প্রশ্ন আব্দুল্লাহ মাহফুজ ঠিকানাঃ শাহপরান আ/এ রমজান মাসে বিতরের নামাজে দিত্বীয় রাকাতের পর দুআয়ে কুনুত পড়ার জন্য যে তাকবীর দেয়া হয় ইমাম সাহেব যদি এই তাকবীর ভুলে গিয়ে তিনি রুকুতে চলে যান কিন্তু মুসল্লিরা রুকুতে যাননি এবং যখন লুকমা দেওয়া হল তখন তিনি দাড়িয়ে গেলেন এবং দুআয়ে কুনুত পড়ে রুকুতে …

আরো পড়ুন

তারাবীহ নামাযের কাযা পড়ার বিধান কী?

প্রশ্ন From: মো: সানাউল্লাহ হোসেন বিষয়ঃ তারাবীহ অসুস্থতা বা কোন কারণে তারাবীহ নামাজ পড়তে না পারলে, পরবর্তীতে তারাবীহ নামাজ কাযা পড়ার বিধান জানালে উপকৃত হব। উত্তর بسم الله الرحمن الرحيم তারাবীহ নামাযের কোন কাযা নেই। তাই পরবর্তীতে কাযা করার কোন সুযোগ নেই। পড়লে তা নফল হবে। তারাবীহ নামাযের কাযা হবে …

আরো পড়ুন

তারাবীহ সালাত কি নবীজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের যুগে জামাতের সাথে পড়া হয়নি?

প্রশ্ন From: আল মাহমুদ বিষয়ঃ তারাবির নামাজ হযরত,, আমাকে ৩য় রমজানে তারাবির শেষে এক ব্যাক্তি বলে উঠল “ভাই তারাবি পরলেন এর ইতিহাস কি জানেন? ” আমি বললাম রাছুল (সাঃ) পরতে বলেছেন আর বলেছেন এটা রমজানের আমল এবং অত্যান্ত নেকির আমল,তিনি বললেন “আরে তারাবির নামাজ কুরাআন বা হাদিস দ্ধারা নয় বরং …

আরো পড়ুন

রোযা রেখে অশ্লীল জিনিস দেখে মজি বের হলে রোযা ভেঙ্গে যাবে?

প্রশ্ন From: আমির খান বিষয়ঃ রোজা প্রশ্নঃ আমি আমার মামাতো ভাইয়ের ইমেইল এর ইতিহাস চেক করতে যেয়ে সার্চ ইতিহাস এ কিছু adult history পেলাম । যেটা তে আমি কিছুতা উত্তেজিত অনুভব করি। কিছুক্ষন পরে আমি অনুভব করলাম আমার লজ্জাস্থান দিয়ে পাতলা পানি রঙের মজি বের হয়েছে। এতে কি আমার রোজা …

আরো পড়ুন

রোযা রেখে ফরজ গোসল কিভাবে আদায় করবে?

প্রশ্ন From: শাহাদাত হোসাইন বিষয়ঃ রোজা অবস্থায় ফরজ গোসলের নিয়ম। আমরা জানি যে রোজা অবস্থায় গড়গড়া কুলি করা যাবে না। এখন ফরজ গোসলে গড়াগড়া কুলি করা আবশ্যক। এক্ষেত্রে রোজাদার কীভাবে গোসল করবে? গড়াগড়া কুলি না  করলে এবং নাকের নরম অংশে পানি না পৌঁছলে তাঁর গোসল সম্পূর্ণ হওয়ার নিশ্চয়তা কী? অনুগ্রহ …

আরো পড়ুন

রোযা রেখে ফেইসবুক ব্যবহার ও অশ্লীল কিছু দেখার হুকুম কী?

প্রশ্ন আসসালামু অলাইকুম। রোজা অবস্থায় ফেসবুক ব্যবহার করা যাবে কি? এবং কিছু নোংরা পোস্ট যদি সামান্য উত্তেজিত করে তবে কি রোজার কোন ক্ষতি হবে। উত্তর بسم الله الرحمن الرحيم আমরা ইতোপূর্বের এক প্রশ্নের উত্তরে লিখেছি যে, যদি শরীয়তে নিষিদ্ধ কোন কারণ না পাওয়া যায়, তাহলে এসব ব্যবহারে কোন নিষেধাজ্ঞা নেই। …

আরো পড়ুন

তারাবীহ নামাযে চার রাকাত পরে বসার সময় পড়ার জন্য নির্দিষ্ট কোন দুআ আছে কি?

প্রশ্ন From: মমিনুল হক বিষয়ঃ তারাবিহ সলাতে ৪ রাকাত পর পর দোয়া পড়ার ব্যাপারে। প্রশ্নঃ তারাবিহ সলাতে ৪ রাকাত পর পর যে দোয়াটি পড়া হয় ,ঐ দোয়াটি নাকি ভিত্তিহীন। আমরা কেন পড়ি, যদি আপনার কাছে এই দোয়া  ব্যাপারে সঠিক কোন দলিল থাকলে আমাকে রেফারেন্স সহ দিবেন ।যাতে আমি ঐ আলেমকে …

আরো পড়ুন

সেহরীর সময় মানুষকে জাগাতে কুরআন পাঠ গজল গাওয়া ও বারবার ইলান করার হুকুম কী?

প্রশ্ন   বর্তমানে রমজান মাসে শেষ রাতে লোকদের জাগানোর জন্য সেহরীর শেষ সময়ের এক দেড় ঘন্টা, কোথাও দুই ঘন্টা আগে থেকেই মাইকে এলান করার রেওয়াজ রয়েছে। গজল, কুরআন তিলাওয়াত, বারবার ইলান ইত্যাদির মাধ্যমে মানুষকে সজাগ করার চেষ্টা করা হয়। যদ্ধারা অনেকেরই তাহাজ্জুদ, জিকির আজকার, কুরআন তিলাওয়াত, দুআ ইত্যাদি ব্যক্তিগত ইবাদতে …

আরো পড়ুন