হোম / আজান ও ইকামত / একাকী নামায আদায়কারী ব্যক্তি ইকামত দিবে নাকি দিবে না?
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

একাকী নামায আদায়কারী ব্যক্তি ইকামত দিবে নাকি দিবে না?

প্রশ্ন

From: Md. Monirul Islam
বিষয়ঃ একাকী নামাযে একামত বলা

প্রশ্নঃ
আমি যদি একাকী নামায পড়ি তাহলে একামত বলা কি জরুরী?
না বললে কোন সমস্যা হবে?
বিস্তারিত জানালে ভাল হয়।

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

একাকী নামাযী ব্যক্তি যদি মুসাফির হয়, তাহলে তার জন্য ইকামত দিয়ে নামায পড়তে হবে। ইকামত ছাড়া নামায পড়ে, তাহলে মাকরূ হবে।

আর যদি একাকী নামাযী ব্যক্তি মুকীম হয়,এবং ঘরে নামায পড়ে, তাহলে তার জন্য ইকামত দেয়া উত্তম। যদি না দেয়, তাহলে কোন সমস্যা নেই।

আর যদি মুকীম ব্যক্তি মসজিদে একাকী নামায পড়ে, তাহলে ইকামত  ছাড়া পড়াই উত্তম।

عن علقمة قال: صلى عبد الله بن مسعود بى وبالأسود بغير أذان والا إقامة وربما، قال: يجزئنا أذان الحى وإقامتهم (السنن الكبرى للبيهقى، كتاب الصلاة، باب الإكتفاء بأذان الجماعة وإقامتهم-2/166، رقم-1950)

عن أم ورقة الأصارية أن رسول الله صلى الله عليه وسلم كان يقول: انطلقوا بنا إلى الشهيدة، فنزورها، فأمر أن يؤذن لها ويقام وؤم أهل دارها فى الفرائض (السنن الكبرى للبيهقى، كتاب الصلاة، باب الإكتفاء بأذان الجماعة وإقامتهم-2/166، رقم-1948)

اذا صلى رجل فى بيته واكتفى بأذان الناس وإقامتهم أجزأه من غير كراهة…… والمسافر إذا صلى وحده وترك الأذان والإقامة، أو ترك الإقامة، فإنه يكره له ذلك، والمقيم إذا صلى وحده بغير أذان ولا إقامة، لا يكره (الفتاوى التاتارخانية، كتاب الصلاة، الفصل الثانى فى الأذان-2/151، رقم-2005-2006

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক ও প্রধান মুফতী – মা’হাদুত তালীম ওয়াল  বুহুসিল ইসলামী ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম আমীনবাজার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া ফারূকিয়া দক্ষিণ বনশ্রী ঢাকা।

Print Friendly, PDF & Email
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

এটাও পড়ে দেখতে পারেন!

আরব ছাড়া বিশ্বের কোথাও না যাবার পরও মুহাম্মদ সাঃ বিশ্বনবী হন কিভাবে?

প্রশ্ন From: K.M.Shamem Ahmed বিষয়ঃ মাসয়ালা প্রশ্নঃ এক ভাই আমাকে প্রশ্ন করেছে যে – তোমাদের …