প্রচ্ছদ / প্রশ্নোত্তর / গ্রাচুয়িটি ও প্রভিডেন্ট ফান্ডের টাকার উপর কি যাকাত আসে?

গ্রাচুয়িটি ও প্রভিডেন্ট ফান্ডের টাকার উপর কি যাকাত আসে?

প্রশ্ন

হুজুর,

আস্ সালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতুহ।

আমি অাজ 22 জুন এক বছর হিসেব করে যাকাত দিতে ইচ্ছুক। এমতাবস্থায় নিম্ন অবস্থা বিশ্লেষন করে জানাবেন কত টাকা পরিমাণ যাকাত দিতে হবে।

১. আমার পাওনা গ্রাচুইটি বাবাদ অফিসে গচ্ছিত আছে 81 হাজার টাকা (বর্তমানে গ্রাচুইটি বন্ধ বিধায় উক্ত টাকা অফিস ফেরত দিতে কিছুটা 6/7 মাস সময় নিবে অথবা সময় বাড়তে পারে)

  1. আমার পাওনা প্রভিডেন্ট ফান্ড টাকা বাবদ অফিসে গচ্ছিত আছে 144000/- টাকা (বর্তমানে প্রভিডেন্ট ফান্ড বন্ধ। তবে অফিস এই টাকা একমাত্র চাকুরি থেকে অব্যহতি নেয়ার পরই ফেরত দিবে।)
  2. আমার স্ত্রীর নিকট একটি স্বর্ণের চেন 1 ভরি ও কন্যার স্বর্ণের চেন সহ সর্বমেট দেড় ভরি সোনা আছে।
  3. একটি ইসলামী ব্যাংকে 50000 টাকার 6 মাসের টার্ম ডিপোজিট আছে।
  4. 25000/- টাকা ঋণগ্রস্ত।
  5. হাতে জুলাই বেতন+বোনাসসহ 60000/- টাকা আছে।

দয়া করে উপরোক্ত বিষয়টি বিবেচনা করে ক্যালকুলেট করে জানান আমি কি যাকাত দেবার মত অবস্থায় আছি। থাকলে কত টাকা যাকাত দিতে হবে।

অনুগ্রহ করে এই ইমেইল বডিতে উত্তর দিয়ে উপকৃত করবেন। বিষয়টি ব্যক্তিগত বিধায় আপনার ওয়েবসাইটে প্রকাশ করবেন না।

আপনার প্রতি  কৃতজ্ঞতা জানাই আমার আগের তাহাজ্জুদ নামাজ সম্পর্কিত প্রশ্নের উত্তরের জন্য।

 

নাম ঠিকানা প্রকাশে অনিচ্ছুক

উত্তর

وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته

بسم الله الرحمن الرحيم

আমাদের পাল্টা প্রশ্ন করা মেইলের জবাবে আপনি জানিয়েছেন যে, ডিপোজিট ও গ্রাচুয়িটি বাবদ জমা অর্থ বাধ্যতামূলকভাবে আপনাকে বেতন হিসেবে হস্তান্তর না করেই অফিস কর্তৃপক্ষ জমা রেখেছে। এবং স্বর্ণের অলংকারের মূল মালিক আপনি।

এ হিসেবে আপনার বর্তমান সম্পদ দাঁড়ালোঃ

স্বর্নের চেইন দু’টি।

৫০ হাজার টাকা ব্যাংকে জমা।

৬০ হাজার টাকা বেতন বাবদ।

এর মাঝে ২৫ হাজার টাকা ঋণগ্রস্ত।

আর অফিস কর্তৃপক্ষ যেহেতু আপনার বেতন থেকে কর্তিত ডিপোজিট ও গ্রাচুয়িটির টাকা আপনার কাছে হস্তান্তরই করেনি, তাই এর মালিকানা আপনার এখনো হয়নি। তাই এর টাকার উপর কোন যাকাত আসবে না।

উপরোক্ত সম্পদ পর্যালোচনা করলে যেহেতু সাড়ে বায়ান্ন তোলা রূপার বর্তমান সমমূল্য পরিমাণ টাকা হয়ে যায়, তাই আপনার উপর যাকাত আবশ্যক।

এক্ষেত্রে দু’জনের অলংকারের স্বর্ণের মূল্য কত? তা জুয়েলারী দোকান থেকে নির্ধারণ করে নিতে হবে। আর যে ২৫ হাজার টাকা আপনি ঋণগ্রস্থ তা এখনি আদায়যোগ্য নাকি দীর্ঘমেয়াদী?

এখনি আদায় করতে আপনি বাধ্য না হোন, তাহলে তা যাকাতের তালিকা থেকে বাদ যাবে না। কিন্তু এখনি আদায়ে বাধ্য হন, তাহলে তা মোট টাকা থেকে বাদ দিতে হবে।

এ হিসেবে স্বর্ণের মূল্য, এবং আপনার বেতন বাবদ প্রাপ্ত অর্থ ও ব্যাংকে জমা টাকা মোট হিসেব করে যত হবে, এর থেকে চল্লিশ ভাগ হিসেব করে যাকাত প্রদান করতে হবে।

উদাহরণতঃ

স্বর্ণের চেইনের দাম আনুমানিক ৬০,০০০/=

ব্যাংকে জমা টাকা- ৫০,০০০/=

বেতন বাবদ প্রাপ্ত টাকা- ৬০,০০০/=

মোট অর্থ-১,৭০,০০০/=

সুতরাং এর চল্লিশ ভাগ যাকাত হিসেবে আসবে ৪,২৫০/=

আর যদি ২৫ হাজার টাকা ঋণ বাবদ ফেরত দিতে এখনি বাধ্য হোন, তাহলে মোট অর্থ দাঁড়াবে ১,৪৫,০০০/=

সেই হিসেবে যাকাত আসবে ৩,৬২৫/=

উপরোক্ত পদ্ধতিতে স্বর্নের দাম জুয়েলারী দোকান থেকে জেনে আপনি আপনার উপর আবশ্যক হওয়া যাকাতের পরিমাণ বের করে নিতে পারবেন।

وفي رد المحتار- ( قوله أو مؤجلا إلخ ) عزاه في المعراج إلى شرح الطحاوي ، وقال : وعن أبي حنيفة لا يمنع وقال الصدر الشهيد : لا رواية فيه ، ولكل من المنع وعدمه وجه، زاد القهستاني عن الجواهر : والصحيح أنه غير مانع (رد المحتار-كتاب الزكاة، مطلب الفرق بين السبب والشرط والعلة-3/177، بدائع الصنائع-2/86

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তালীমুল ইসলাম ইনষ্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম সালেহপুর, আমীনবাজার ঢাকা।

ইমেইল- ahlehaqmedia2014@gmail.com

আরও জানুন

ফজরের নামাযে কুনুতে নাজেলা কি হযরত উমর রাঃ সারা বছর পড়তেন?

প্রশ্ন From: মাহমুদ বিষয়ঃ কুনূতে নাযেলা প্রশ্নঃ উমার রাঃ এর আমল হিসেবে আমাদের মসজিদে ফজর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আহলে হক্ব বাংলা মিডিয়া সার্ভিস