প্রচ্ছদ / তালাক/ডিভোর্স/হুরমত / স্ত্রীকে “তুমি মুক্ত স্বাধীন” বলার দ্বারা কি তালাক হয়?

স্ত্রীকে “তুমি মুক্ত স্বাধীন” বলার দ্বারা কি তালাক হয়?

প্রশ্ন

আসসালমুআলাইকুম । হুজুর আমি তালাক বিষয়ে একটা মাসআলা জানতে চাই।

আমরা একদিন এস.এম. এস এ  আমি ও আমার স্ত্রী ২ জন কথা কাটাকাটি করি।

অতঃপর আমি তালাক এর বিন্দু মাত্র উদ্দেশ্যে নয়। বরং ওকে সোধরানোর জন্য বলি যে, তুমি তো মুক্ত স্বাধীন যা ইচ্ছা কইরো।

কিন্তু আমি কখন ও এটা জানতামও না যে, এমন কোনো শব্দ দ্বারা বিবাহের কোনো ক্ষতি হয় কিনা?

এবং এখন ও জানি না। আমার এটা নিয়ে খুব বেশি চিন্তা হচ্ছে ।

এবং এটা বলেছি আরো অনেক আগে কিন্তু হটাৎ আমার এইটা মাথায় আসছে। তাই আমি খুব বেশি চিন্তিত। আমি চাই দয়া করে হুজুর খুব দ্রুত সমাধান দিয়ে আমাকে উপকৃত করবেন হুজুর।

আমি যে কাজ করেছি  অর্থাৎ, বলছি তুমিতো মুক্ত স্বাধীন যা ইচ্ছা কইরো।

এতে আমাদের বৈবাহিক সম্পর্কের কোনো ক্ষতি হবে কি?

আমার এ উদ্দেশ্য কোনোমতেই তালাক এর ছিল না ।

আসসালামুয়ালাইকুম।

 

উত্তর

وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته

بسم الله الرحمن الرحيم

“তুমি মুক্ত স্বাধীন” বাক্যটা আমাদের উপমহাদেশের উরফ তথা সামাজিক প্রচলনে তালাক হিসেবেই প্রদান করা হয়ে থাকে।

তাই এর মাধ্যমে তালাকে রেজয়ী পতিত হয়।

সেই হিসেবে যদি একবার বলে থাকেন, তাহলে এক তালাকে রেজয়ী পতিত হয়ে গেছে।

এখন মুখে মুখে বা স্ত্রীর সাথে স্ত্রীসূলভ আচরণ করার মাধ্যমে তাকে ফিরিয়ে আনা যাবে। ভবিষ্যতে আর আপনি দুই তালাকের মালিক থাকবেন।

শরয়ী আইন না জানা সেই আইনে অপরাধ করলে তা থেকে মুক্তি পাওয়া যায় না।

যেমন আপনি রাস্তায় বের হয়ে আইন লঙ্ঘণ করে যদি বলেন, আপনি আইন জানেন না, তাহলে আপনি বাঁচতে পারবেন না।

বরং রাস্তায় বেরিয়ে আইন না জানাও একটি অপরাধ।

তেমনি আপনি বিয়ে করছেন। কিন্তু বিবাহ সংক্রান্ত আইন না জানাটাও ভুল।

সুতরাং না জানা বিধান আরোপিত হবার প্রতিবন্ধক হবে না।

“رها كردم” أى سرحتك يقع به الرجعى (رد المحتار، كتاب الطلاق، باب الكنايات-4\530)

ولو قال الرجل لامرأته: “تراجنك بازداسشتم” “أو بهشتم، أو “يله كردم ترا” فهذا كله تفسير قوله: طلقتك عرفا حتى يكون رجعيا ويقع بدون النية، كذا فى الخلاصة (الفتاوى الهندية، كتاب الطلاق، الباب الثانى فى ايقاع الطلاق، الفصل السابع فى الطلاق بالالفاظ للفارسية-1\379، جديد-1\447)

فإذا قال: “رها كردم” أى سرحتك يقع به الرجعى مع أن أصله كناية أيضا، لأنه غلب فى عرف الناس استعماله فى الطلاق (رد المحتار-4\530)

صريحه مالم يستعمل إلا فيه، ولو بالفارسية، فما لا يستعمل فيها إلا فى الطلاق فهو صريح يقع بلا نية (رد المحتار-4\457)

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তা’লীমুল ইসলাম ইনস্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

আরও জানুন

লাশের খাটিয়া কাঁধে রাখা অবস্থায় জানাযা পড়া যাবে?

প্রশ্ন হুজুর আমাদের এলাকায় বন্যার পানিতে সব ভেসে গেছে। জানাযা পড়ার মত কোন শুকনো জায়গা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আহলে হক্ব বাংলা মিডিয়া সার্ভিস