প্রচ্ছদ / প্রশ্নোত্তর / প্রভিডেন্ট ফান্ড এবং ফিক্সড ডিপোজিট ও আপন ভাইকে যাকাত দেয়ার হুকুম

প্রভিডেন্ট ফান্ড এবং ফিক্সড ডিপোজিট ও আপন ভাইকে যাকাত দেয়ার হুকুম

প্রশ্ন

আসসালামু আলাইকুম।

১।

আমি সরকারী চাকুরী করি। আমার প্রভিডেন্ড ফান্ডে সুদমুক্ত হিসেবে মাসিক ৩০০০/- টাকা মাসিক জমা করি। গত কয়েক বছরে  প্রায় ৪০০০০০/- টাকা জমা হয়েছে যার উপর কোন সুদ হয়না, বিধায় মূল টাকা বর্ধিত হয়না। এটি আমি চাকুরী সমাপ্তিতে উত্তোলন করবো। এই টাকা যাকাতযোগ্য কিনা?

২।

আমার আপন ভাই ভিন্ন জেলায় তার সংসার নিয়ে থাকে। গত দুই বছর আগে শারীরিক কারণে চাকুরী হতে ইস্তফা প্রদান  করে। বর্তমানে তার কোন আয় নেই। প্রায় বেড রেস্টে থাকার মতো শারীরিক অবস্থা। আমাদের সবার দেয়া সাহায্যে অতি কষ্টে সংসার চালায়। তার কোন জমি নেই, ভাড়া বাসায় থাকে। সংসারে পুরাতন সোফা,ফ্রিজ,ওয়াশিং মেশিন, ওভেন আছে যা চাকুরীকালীন দুই বছর আগে ক্রয় করা। নেসাব পরিমাণ স্বর্ণ বা অর্থ নেই। তাকে যাকাত দেয়া যাবে কিনা?

৩।

ব্যাংকে ২ লক্ষ টাকা ৫ বছর মেয়াদে ফিক্সড করা আছে। আগামী বছর মেয়াদ পূর্তিতে ৪ লক্ষ টাকা পাওয়া যাবে। এক্ষেত্রে কত টাকার উপর যাকাত হবে?

জরুরী জবাব পেলে খুবই উপকৃত হবো।

জাজাকাল্লাহু খইরন,

মোঃ সাইফুল হক

পুরানা পল্টন, ঢাকা।

উত্তর

وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته

بسم الله الرحمن الرحيم

১ম প্রশ্নের উত্তর

যদি উক্ত প্রভিডেন্ট ফান্ডের টাকা আপনার হাতে টাকা না দিয়েই বাধ্যতামূলকভাবে কর্তৃপক্ষ রেখে দেয় তাহলে এর উপর যাকাত এখন যাকাত আসবে না। বরং হাতে আসার পরই উক্ত টাকার উপর যাকাত আবশ্যক হবে।

কিন্তু যদি আপনার ইচ্ছেধীন অবস্থায় তা রাখা হয়ে থাকে, তাহলে উক্ত টাকার উপর প্রতি বছর যাকাত দেয়া আবশ্যক।

আপনার বিবরণে বুঝা যাচ্ছে যে, উক্ত টাকা আপনি ইচ্ছেকৃত রেখে থাকেন। তাই উক্ত টাকার উপর প্রতি বছর যাকাত প্রদান করা আবশ্যক হবে।

عن عبد الله بن دينار عن ابن عمر رضى الله عنه قال: زكوا ما كان فى أيديكم، وما كان من دين فى ثقة، فهو بمنزلة ما فى أيديكم (السنن الكبى للبيهق، كتاب الزكاة، باب زكاة الدين إذا كان على معسر وجاحد-6\69، رقم-7717)

عن الليث بن سعد أن عبد الله بن عباس وعبد الله بن عمر رضى الله عنهما قالا: من أسلف مالا فعليه زكاته فى كل عام، إذا كان فى ثقة (السنن الكبرى للبيهقى، كتاب الزكاة، باب الدن مع الصدقة-6\68، رقم-7713)

ففى القوى تجب الزكاة إذا حال الحول ويتراخى القضا إلى أن يقبض أربعين درهما فيها درهم وكذا فيما زاد بحسابه الخ (البحر الرائق، كتاب الزكاة-2\363)

وأما سائر الديون المقر بها فهي على ثلاث مراتب عند أبي حنيفة – رحمه الله تعالى – ضعيف ، وهو كل دين ملكه بغير فعله لا بدلا عن شيء نحو الميراث أو بفعله لا بدلا عن شيء كالوصية أو بفعله بدلا عما ليس بمال كالمهر وبدل الخلع والصلح عن دم العمد والدية وبدل الكتابة لا زكاة فيه عنده حتى يقبض نصابا ويحول عليه الحول .ووسط ، وهو ما يجب بدلا عن مال ليس للتجارة كعبيد الخدمة وثياب البذلة إذا قبض مائتين زكى لما مضى في رواية الأصل وقوي ، وهو ما يجب بدلا عن سلع التجارة إذا قبض أربعين زكى لما مضى كذا في الزاهديالفتاوى الهندية، كتاب الزكاة، الباب الأول-1/175، البحر الرائق-2/207، النهر الفائق-1/416

২য় প্রশ্নের উত্তর

আপনার উক্ত ভাইকে যাকাত দেয়া যাবে। এমন আত্মীয়দের যাকাত দেয়া সর্বোত্তম।

ولو دفع الزكاة إلى من يعوله بيده يجوز (الفتاوى السراجية، كتاب الزكاة، باب مواضع الصدقات-156، مكتبة الاتحاد)

عن ابن عابس رضى الله عنهما قال: لا بأس أن تجعل زكاتك فى ذوى قرابتك ما لم يكونوا فى عيالك، (المصنف لابن ابى شيبة-6/543، رقم الحديث-10633)

والأفضل فى الزكاة والفطر والنذور الصرف أولا إلى الإخوة والأخوات، ثم إلى أولادهم، ثم إلى الأعمام والعمات، ثم إلى أولادهم، ثم إلى الأخوال والخلات، ثم إلى أولادهم (الفتاوى الهندية-1/190)

قالوا: الأفضل صرف الصدقة إلى أخواته ذكورا أو إناثا (مجمع الأنهر-1/226)

عن سلمان بن عامر رضى الله عنه عن النبى صلى الله عليه وسلم قال: الصدقة على المسكين صدقة، وإنها على ذى الرحم اثنتان، إنها صدقة وصلة، مسند احمد-4/18، رقم-16342

৩য় প্রশ্নের উত্তর

এ বছর যত টাকা আছে তত টাকার উপর যাকাত আসবে। আর আগামী বছর যখন ৫ লাখ হবে তখন আগামী বছর ৫ লাখ টাকার যাকাত আদায় করতে হবে।

ففى القوى تجب الزكاة إذا حال الحول ويتراخى القضا إلى أن يقبض أربعين درهما فيها درهم وكذا فيما زاد بحسابه الخ (البحر الرائق، كتاب الزكاة-2\363)


عَنْ عُبَيْدَةَ، قَالَ: سَأَلْتُ إِبْرَاهِيمَ، عَنْ رَجُلٍ لَهُ مِائَةُ دِرْهَمٍ وَعَشَرَةُ دَنَانِيرَ، قَالَ: «يُزَكِّي مِنَ الْمِائَةِ بِدِرْهَمَيْنِ، وَمِنَ الدَّنَانِيرِ بِرُبْعِ دِينَارٍ» وَقَالَ سَأَلْتُ الشَّعْبِيَّ فَقَالَ: «يُحْمَلُ الْأَكْثَرُ عَلَى الْأَقَلِّ، أَوْ قَالَ عَلَى الْأَكْثَرِ، فَإِذَا بَلَغَتْ فِيهِ الزَّكَاةُ زَكَّى (المصنف ابن ابى شيبة، كتاب الزكاة، فى الرجل تكون عندها مائة درهم وعشرة دنانير-6/393، رقم-9978)

وفى الخانية:فى كل مأتى درهم خمسة دراهم وفى كل عشرين مثقال نصف مثقال (تاتارخانية، كتاب الزكاة، زكاة المال-3/155، رقم-3977

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তা’লীমুল ইসলাম ইনস্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

আরও জানুন

তোকে তালাক দিলাম তিনবার বললে কয় তালাক পতিত হয়?

প্রশ্ন বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম শ্রদ্ধেয় মুফতি সাহেব। আস্সালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহ। আমি মোঃ …….., পিতাঃ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আহলে হক্ব বাংলা মিডিয়া সার্ভিস