হোম / আধুনিক মাসায়েল / ভিডিও গেমস খেলার হুকুম কী?
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

ভিডিও গেমস খেলার হুকুম কী?

প্রশ্ন

From: Habib
বিষয়ঃ ভিডিও গেম ক্লাস ওফ ক্লান

প্রশ্নঃ
Clash of Clans এই গেমস টি কী খেলা যাবে?

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

ইসলামী শরীয়তে খেলাধুলা কয়েকটি শর্তে জায়েজ। যথা-

১- যে খেলা খেলা হবে, তা কাফের ও মুশরিকদের প্রতীক না হতে হবে।

২- খেলায় হারজিতের বাজী না থাকতে হবে।

৩- খেলায় মগ্নতার কারণে নামায, রোজা, ইবাদত বা হালাল রুজি কামাই বিষয়ে ক্ষতি না হতে হবে।

৪- খেলার মাঝে শরীয়ত গর্হিত কোন বিষয় না থাকতে হবে।

৫-খেলার মাঝে শারীরিক বা মানসিক কোন উপকারীতা থাকতে হবে।

ভিডিও গেম খেলার মাঝে মৌলিক কোন ফায়দা নেই। অহেতুক সময় নষ্ট করা ছাড়া। তাছাড়া ভিডিও গেমের মাঝে নারীদের অশ্লীল ছবিও সংযোজিত থাকে, তাই উপরোক্ত ভিডিও গেম খেলা জায়েজ হবে না।

যদি উপরোক্ত বিষয়গুলো না থাকে, তবু অহেতুক সময় নষ্ট কারণে অপছন্দনীয় ।

وعلى هذا الأصل: فالألعاب التى يقصد بها رياضة الأبدان، أو الأذهان جائزة فى نفسها، ما لم تشتمل على معصية أخرى، وما لم يؤد الأنهماك فيها إلى الإخلال بواجب الإنسان فى دينه ودنياه، والله سبحانه أعلم (تكملة فتح الملهم، حكم الألعاب فى الشريعة-4\436)

إن الملاهى كلها حرام (الدر المختار، كتاب الحظر والإباحة-9\502)

وكره تحريما اللعب بانرد، وكذا الشطرنج وكره كل لهو، لقوله عليه الصلاة والسلام كل لهو المسلم حرام إلا ثلاثة ملاعبته أهله، وتأديبه لفرسه، ومناضلته بقوسه (الدر المختار مع رد المحتار، كتاب الحظر والإباحة، باب الإستبراء وغيره-9\565)

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক ও প্রধান মুফতী – মা’হাদুত তালীম ওয়াল  বুহুসিল ইসলামিয়া ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম আমীনবাজার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া ফারূকিয়া দক্ষিণ বনশ্রী ঢাকা।

Print Friendly, PDF & Email
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

এটাও পড়ে দেখতে পারেন!

মাছের রক্ত পাক নাকি নাপাক?

প্রশ্ন: মুহতারাম , গৃামের মহিলারা মাছ কাটার সময় সাবধানতা অবলম্বন করে না, ফলে তাদের শরীরে …