হোম / ভ্রান্ত মতবাদ / হেযবুত তাওহীদের ভ্রান্ত মতবাদ (৭)
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

হেযবুত তাওহীদের ভ্রান্ত মতবাদ (৭)

হঠাৎ করেই মুসলিম জাতির আক্বীদা বিকৃত হয়ে গেছে!

হেযবুত তাওহীদের বক্তব্যঃ 

৬০ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ঐ জাতিটি তখনকার দিনের অর্দ্ধেক পৃথিবী জয় কোরে আল্লাহর আইনের শাসনের অধীনে নিয়ে এলো …….. অর্দ্ধেক পৃথিবীতে আল্লাহর আইন প্রবর্ত্তন করার ফলে ঐ সমস্ত এলাকায় লুপ্ত হোয়ে গেলো শোষণ, অবিচার, অন্যায়, নিরাপত্তাহীনতা অর্থাৎ ফাসাদ ও সাফাকুদ্দিমা। প্রতিষ্ঠিত হোল সুবিচার; ব্যক্তিগত ও সমষ্ঠিগত, অর্থনৈতিক, সামাজিক, রাজনৈতিক, সুবিচার ও নিরাপত্তা; এক কথায় শান্তি।
এরপর ঘোটলো এক মহাদুর্ভাগ্য জনক ঘটনা। ঐ জাতি হঠাৎ তার উদ্দেশ্য ও লক্ষ্য ভুলে গেলো (এসলামের প্রকৃত রূপরেখা ,পৃষ্ঠা ৪-৫)।

পর্যালোচনাঃ

কোন জাতি “হঠাৎ” করে তার লক্ষ্য উদ্দেশ্য ভুলে যায় না। আক্বীদা পরিবর্তন করে না। মানুষ যে আক্বীদায় পুষ্ট হয়, সে আক্বীদায় তার পরবর্তী প্রজন্ম গড়ে ও এটা ধারাবাহিকতায় থাকে। পরিস্থিতির একান্ত প্রভাব ও নাজুকতা ব্যতীত সমাজ বা গোত্র মৌখিকভাবেও তাদের আক্বীদা পরিবর্তনে সায় দেয় না। পন্নীর কথাবার্তা কোনো ঐতিহাসিক ব্যাখ্যার ভাষায় আসেনি, সামাজিক বিশ্লেষণেও আসে নি, এমন কি তা সাধারণ লোকের সম্যক বিচার-বিশ্লেষণের ভিত্তিতেও নয়। আপনি বলবেন একটি জাতি ‘ইস্পাতের মত ঐক্যবদ্ধ গুণের অধিকারী’, তারপর বলবেন তারা ‘সঠিক আক্বীদা’ নিয়ে ‘সুবিচারের’ উপর সমাজ প্রতিষ্ঠাকারী, তারপর তারা সুষ্ঠু অর্থনীতির ভিত্তিতে সুব্যবস্থা প্রবর্তনকারী, নিরাপত্তা দানকারী এবং শান্তি প্রতিষ্ঠাকারী।

তারপর?

তারপর তারা “হঠাৎ” উদ্দেশ্য ও লক্ষ ভুলে গেল? অপদার্থ কথা।

অথচ হাদীস বলছে সম্পূর্ণ ভিন্ন কথা।এই উম্মত কখনই একসাথে ভ্রান্তিতে নিপতিত হবে না।একটি জামাত অবশ্যই হক্বের উপর থাকবে।

عَنْ ابْنِ عُمَرَ رضي الله عنهما أَنَّ رَسُولَ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ قَالَ إِنَّ اللَّهَ لَا يَجْمَعُ أُمَّتِي عَلَى ضَلَالَةٍ ، وَيَدُ اللَّهِ مَعَ الْجَمَاعَةِ
হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে ওমর রাঃ বলেন রাসুলুল্লাহ সল্লল্লহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন আমার সকল উম্মতকে আল্লাহ তায়ালা কখনও ভ্রান্ত (বিকৃত) বিষয়ের উপর ঐক্য করবেন না।
(তিরমিযি হাদিস-২১৬৭;আবু দাউদ হাদিস-৪২৫৩)

عَنْ ثَوْبَانَ، قَالَ قَالَ رَسُولُ اللَّهِ صلى الله عليه وسلم ‏”‏ لاَ تَزَالُ طَائِفَةٌ مِنْ أُمَّتِي ظَاهِرِينَ عَلَى الْحَقِّ لاَ يَضُرُّهُمْ مَنْ خَذَلَهُمْ حَتَّى يَأْتِيَ أَمْرُ اللَّهِ وَهُمْ كَذَلِكَ

সাওবান (রাঃ) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ আমার উম্মাতের একটি দল সর্বদাই হকের উপর প্রতিষ্ঠিত থাকবে। তাঁদের সঙ্গ ত্যাগ করে কেউ তাদের কোন অনিষ্ট করতে পারবে না। এমন কি এভাবে আল্লাহর আদেশ অর্থাৎ কিয়ামত এসে পড়বে আর তারা যেমনটি ছিল তেমনটাই থাকবে।(সহীহ মুসলিম-ইঃফা,হাদীস নং-৪৭৯৭)

হিযবুত তাওহীদের জন্ম ১৯৯৫ সালে।তাদের দাবি বর্তমান ইসলাম বিকৃত ইসলাম।তারা প্রকৃত ইসলামের প্রচারক।তাদের এ দাবি মেনে নিলে হাদীসের বক্তব্য মিথ্যা প্রতিপন্ন হয়।

হাদীস বলছে প্রত্যেক যুগেই একটি জামাত হক্বের উপর প্রতিষ্ঠিত থাকবে।

হিযবুত তাওহীদ বলছে তাদের উত্থানের পূর্বে পৃথিবীতে যে ইসলাম ছিল তা বিকৃত।(নাউযুবিল্লাহ)

আপনি কার কথা মানবেন?

Print Friendly, PDF & Email
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

এটাও পড়ে দেখতে পারেন!

হেযবুত তওহীদ সংগঠনটি রাষ্ট্রের নিরাপত্তার জন্য কেন হুমকি?

ডাউনলোড লিংক