হোম / নামায/সালাত/ইমামত

নামায/সালাত/ইমামত

মহিলাগণ নামাযের রুকু কিভাবে করবেন?

প্রশ্ন From: Mamun বিষয়ঃ মহিলাদের নামাজ প্রশ্নঃ জনাব, আস সালামু আলাইকুম, আমার প্রশ্ন হলঃ নামাজে মহিলাদের কিছু ভিন্নতা আছে বলে আমরা জানি। কিছু কিছু ভিন্নতা (যেমন হাত উঠানো, হাত বাধা, তাসাহূদে বসা, সিজদাহ করা্‌ ইত্যাদির তফাৎ বুঝতে পেরেছি, বা জেনেছি। এ বিষয়ে কোন প্রশ্ন নেই। আমার প্রশ্ন হল, রুকু নিয়ে। …

আরো পড়ুন

নামায কবে থেকে ফরজ হয়? নবীজী কত বছর নামায পড়েছেন?

প্রশ্ন From: Sultan Hazari মোবাইল/ইমেইলঃ sultanhazari@gmail.com বিষয়ঃ Huzur (saw) ar namaj হুজুর সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম তার জীবনে কত বছর কত মাস নামায পড়েছেন? মেরাজের আগে কি নামায পড়েছেন? উত্তর بسم الله الرحمن الرحيم নবুওয়াতপ্রাপ্তির পঞ্চম বছর মেরাজ হয়। মেরাজেই তিনি ফরজ নামাযের নির্দেশ পান। এর পর আমৃত্যু নবীজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম …

আরো পড়ুন

বিতর সালাত সম্পর্কে মুযাফফর বিন মুহসিনের নজীরবিহীন প্রতারণা ও জালিয়াতি

আল্লামা আব্দুল মতীন দামাত বারাকাতুহু মুযাফফর বিন মুহসিন তার ‘জাল হাদীছের কবলে রাসূলুল্লাহ (ছাঃ) এর ছালাত’ বইয়ে বিতর নামায সম্পর্কেও অনেক জালিয়তি ও ভুল তথ্য পেশ করেছেন। তিনি চেষ্টা করেছেন একথা প্রমাণ করার যে, বিতর ছালাত এক রাকাত অথবা তিন রাকাত হলে দুই সালামে কিংবা দ্বিতীয় রাকাতে বৈঠক ব্যতিত এক …

আরো পড়ুন

মুযাফফর বিন মুহসিন কেন জাল হাদীসের কবলে? আল্লামা আলবানী একাডেমীর অবিশ্বাস্য জালিয়াতি

আল্লামা আব্দুল মতীন দামাত বারাকাতুহু লেখক মুযাফফর বিন মুহসিন তার  জাল হাদীছের কবলে রাসূলুল্লাহ ছাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের ছালাত বইতে হানাফী জাল হাদীস ধরার জন্য যেন জাল পেতেছেন। অবশেষে নিজের পাতা জালে নিজেই আটকা পড়েছেন। মানসুখ কাহিনী : ঐতিহাসিক মিথ্যাচার শিরোনামে তিনি রাসূল সা. যে সারা জীবন রফয়ে ইয়াদায়ন করেছেন তার …

আরো পড়ুন

রফউল ইয়াদাইনের মাসআলায় মুযাফফর বিন মুহসিনের আজব প্রতারণা

আল্লামা আব্দুল মতীন দামাত বারাকাতুহু এ মাসআলায় আমাদের লা-মাযহাবী বন্ধু মুযাফফর বিন মুহসিন তার জাল হাদীছের কবলে রাসূলুল্লাহ ছাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের ছালাত নামক বইটিতে বলেছেন: ‘জ্ঞাতব্য : রাফউল ইয়াদায়েনের সুন্নাতকে রহিত করার জন্য আব্দুল্লাহ ইবনু জুবাইর, আব্দুল্লাহ ইবনু আব্বাস, আব্দুল্লাহ ইবনু মাসউদ (রা.) এই অন্যতম শ্রেষ্ঠ কয়েকজন ছাহাবীর নামে উক্ত …

আরো পড়ুন

শুধু তাকবীরে তাহরীমার সময় রফয়ে ইয়াদাইন সুন্নত

আল্লামা আব্দুল মতীন দামাত বারাকাতুহু একাধিক হাদীস ও অধিকাংশ সাহাবী ও তাবেয়ীর আমল একথা প্রমাণ করে যে, নামাযে শুধু প্রথম তাকবীরের সময় কান পর্যন্ত হাত তোলা সুন্নত। রুকুতে যাওয়ার সময় এবং রুকু থেকে ওঠার সময় হাত তোলা সুন্নত নয়। সাহাবীগনের যুগে মদীনা শরীফ এবং কুফা এই দুটি শহরেই অধিকাংশ সাহাবী …

আরো পড়ুন

নামাযে মাতৃভাষায় দুআ করার হুকুম কী?

প্রশ্ন From: nazmul huda বিষয়ঃ namaz প্রশ্নঃ মোঃ নাজমুল হুদা- ঢাকা পলিটেকনিক-তেজগাঁও-ঢাকা-১২০৮ আসসালামুয়ালাইকুম। হযরত আমরা নামাজ ভঙ্গের কারণ এর মধ্যে জানি। ১-নামাজের ভিতর কথা বলা, ২-নামাজে সাংসারিক কথা বলা। আমি জানি যে হুজুর (সঃ),সাহাবী(রাঃ),তাবেয়ী, তারা যে কোন সমস্যায় পরলে নফল নামাযে দাড়াতেন। এবং আল্লাহ রব্বুল আলামিন এর নিকট দুয়া করতেন। …

আরো পড়ুন

সাহু সেজদা ভুলে না করলে উক্ত নামায পুনরায় পড়তে হবে?

প্রশ্ন কিছুদিন পূর্বে মাগরিবের নামাজে আমার উপর সেজদায়ে সাহু ওয়াজিব হয়, কিন্তু আমি  তা আদায় করতে ভুলে যাই। আজ সে কথা স্মরণ হয়েছে। এখন আমার জন্য কী করণীয়? সে নামাজ পুনরায় পড়া জরুরী কিনা? অনেকে বলে এক্ষেত্রে ওয়াক্ত অতিবাহিত হয়ে গেলে দোহরিয়ে পড়তে হয় না। এ ব্যাপারে সঠিক হুকুম কি? …

আরো পড়ুন

ইউরোপে শীত ও গ্রীষ্মকালে সময়ের তারতম্যের কারণে দুই নামায একত্রে পড়া যাবে?

প্রশ্ন From: এম. আর. করিম বিষয়ঃ নামায প্রশ্নঃ ইউরুপে গ্রীষ্ম কালে সুর্য অস্ত যায় আনুমানিক ৯.০০-১০.১৫ পিএম এর মধ্যে। অনেকে মাগরিব ও এশার নামাজ এক সাথে পড়ে। আরার শীত কালে সুর্য অস্ত যায় ৪.১৫-৫.০০ পিএম এর মধ্যে। তখন অনেকে যোহর ও আসরের নামায এক সাথে পড়ে। কোরআন ও হাদিসের আলোকে …

আরো পড়ুন

স্বশব্দে আমীন বলার হাদীসগুলো কী সহীহ?

আল্লামা আব্দুল মতীন দামাত বারাকাতুহু জোরে আমীন বলার হাদীস : একটু পর্যালোচনা জোরে আমীন বলা সম্পর্কিত হাদীসগুলি সম্পর্কে মূল কথা হলো, যেটি সহীহ, সেটি সুস্পষ্ট(صريح) নয়। আর যেটি সুস্পষ্ট সেটি সহীহ নয়। যেমন: ১ বুখারী ও মুসলিম প্রভৃতি গ্রন্থে اذا امن الامام فامنوا হাদীসটি উদ্ধৃত হয়েছে। এ বাক্যটির একটি অর্থ …

আরো পড়ুন

সহীহ হাদীসের আলোকে নামাযে নিরবে আমীন বলা সুন্নত

আল্লামা আব্দুল মতীন দামাত বারাকাতুহু আমীন সম্পর্কেও কিছু লোক বাড়াবাড়ি করে। তারা বলে নামাযে আমীন জোরে বলতে হবে। আস্তে বলা সুন্নতের পরিপন্থী। তাদের একথা সঠিক নয়। হাদীস শরীফ, অধিকাংশ সাহাবী ও তাবেয়ী’র আমল দ্বারা একথাই প্রমাণিত হয় যে, আমীন আস্তে বলাই সুন্নত। নিমস্বরে আমীন বলা অধিকাংশ সাহাবী ও তাবেয়ীর আমল …

আরো পড়ুন