হোম / ঈমান ও আমল / ইস্তেখারার ফলাফল শুধু স্বপ্নেই জানা যায়?
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

ইস্তেখারার ফলাফল শুধু স্বপ্নেই জানা যায়?

প্রশ্ন

মুহতারাম,

আমার এক বোন বিয়ের জন্য ইস্তিখারা করছে। তো তিনি প্রথম দিন এই স্বপ্ন দেখে যে, ছেলেকে আপুর খালা বলতেছেনঃ আসো তুমি জামাই। কিন্তু ছেলেটা তার ঘাড় নিচু করে লজ্জার ভঙ্গিতে মাথা ঘুরিয়ে না না বলছে। আসতেই চাচ্ছে না। এমন বুঝচ্ছে। মুখে না, তবে মাথা ঘুরিয়ে।

এ থেকে আল্লাহর কোন ফায়সালার আশংকা আছে?

তারপর আরো দু’দিন করছে আপু ইস্তেখারা। কিন্তু আপু আর কিছু দেখ নাই।

দয়া করে আমাদের উত্তর দিয়ে সাহায্য করবেন। মুহতারাম।

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

ইস্তেখারার মাধ্যমে শুধুই স্বপ্নেই সমাধান বুঝা যাবে বিষয়টি এমন নয়। মূল বিষয় হল, ইস্তেখারা শেষে ঘুমানোর পর জাগ্রত হবার পর মন যেদিকে সায় দিবে, বা যেদিকে আগ্রহী হয়ে উঠবে, সেটিই ফলাফল মনে করবে। [তুহফাতুল আলমায়ী-২/৩৩৮, বেহেশতী জেওর]

আর আপনার আপুর দেখা স্বপ্নটি পরিস্কার নয়। তাই বিয়েটা কল্যাণকর নয় বলা যাচ্ছে না।

তাই ইস্তেখারা শেষে ঘুম থেকে জাগার পর যদি বিয়ের দিকেই কল্যাণকর বলে অনুভূত হয়, তাহলে মুরব্বীদের পরামর্শ সাপেক্ষে বিয়ে করা যেতে পারে।

عَنْ جَابِرِ بْنِ عَبْدِ اللهِ، قَالَ: كَانَ رَسُولُ اللهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ يُعَلِّمُنَا الاِسْتِخَارَةَ فِي الأُمُورِ كُلِّهَا كَمَا يُعَلِّمُنَا السُّورَةَ مِنَ القُرْآنِ، يَقُولُ: إِذَا هَمَّ أَحَدُكُمْ بِالأَمْرِ فَلْيَرْكَعْ رَكْعَتَيْنِ مِنْ غَيْرِ الفَرِيضَةِ، ثُمَّ لِيَقُلْ: اللَّهُمَّ إِنِّي أَسْتَخِيرُكَ بِعِلْمِكَ، وَأَسْتَقْدِرُكَ بِقُدْرَتِكَ، وَأَسْأَلُكَ مِنْ فَضْلِكَ العَظِيمِ، فَإِنَّكَ تَقْدِرُ وَلاَ أَقْدِرُ، وَتَعْلَمُ وَلاَ أَعْلَمُ، وَأَنْتَ عَلاَّمُ الغُيُوبِ، اللَّهُمَّ إِنْ كُنْتَ تَعْلَمُ أَنَّ هَذَا الأَمْرَ خَيْرٌ لِي فِي دِينِي وَمَعِيشَتِي وَعَاقِبَةِ أَمْرِي، أَوْ قَالَ: فِي عَاجِلِ أَمْرِي وَآجِلِهِ، فَيَسِّرْهُ لِي، ثُمَّ بَارِكْ لِي فِيهِ، وَإِنْ كُنْتَ تَعْلَمُ أَنَّ هَذَا الأَمْرَ شَرٌّ لِي فِي دِينِي وَمَعِيشَتِي وَعَاقِبَةِ أَمْرِي، أَوْ قَالَ: فِي عَاجِلِ أَمْرِي وَآجِلِهِ، فَاصْرِفْهُ عَنِّي، وَاصْرِفْنِي عَنْهُ، وَاقْدُرْ لِي الخَيْرَ حَيْثُ كَانَ، ثُمَّ أَرْضِنِي بِهِ، قَالَ: وَيُسَمِّي حَاجَتَهُ. (سنن الترمذى، رقم الحديث-480)

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তালীমুল ইসলাম ইনষ্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম সালেহপুর, আমীনবাজার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

Print Friendly, PDF & Email
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

এটাও পড়ে দেখতে পারেন!

নামাযের মধ্যে ইচ্ছেকৃত নবী বা অন্য কাউকে স্মরণ করা যাবে কি?

প্রশ্ন From: নাইন বিষয়ঃ নামাহ প্রশ্নঃ নামাজের মধ্যে ইচ্ছাকৃত ভাবে কাউকে অথবা রাসুল সা: কে …