হোম / আধুনিক মাসায়েল / রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠান পালন করার হুকুম কী?
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠান পালন করার হুকুম কী?

প্রশ্ন

সরকারী কর্মজীবীদের বিভিন্ন জাতীয় উৎসব পালন করতে হয়। যেমন বিজয় দিবস, স্বাধীনতা দিবস, শহীদ দিবশ,পহেলা বৈশাখ ইত্যাদি । এগুলোতে অংশগ্রহণ করা যাবে কি?যদি অংশগ্রহন করা জায়েজ না হয় তবে চাকরি থেকে পদত্যাগ করবে কি? সরকারী চাকরির জায়েজ-না জায়েজ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চাই?

প্রশ্নকারীঃ

আহসান হাবীব

মধুখালী ,ফরিদপুর।

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

সরকারী চাকুরীতে যদি সরাসরি শরীয়ত বিরোধী কোন কাজে অংশ না নিতে হয়, তাহলে উক্ত চাকুরী করাতে কোন সমস্যা নেই। সমাজ ও রাষ্ট্রের জন্য উপকারী আবার শরীয়ত বিরোধী নয়, এমন রাষ্ট্রীয় আইন মানা কর্তব্য।

সেই হিসেবে স্বাধীনতা দিবস, শহীদ দিবস ও বিজয় দিবসে শহীদদের জন্য দুআ করার মানসে অনুষ্ঠানে অংশ নেয়া জায়েজ আছে।

কিন্তু গান বাজনা, পুরুষ মহিলার সম্মিলন এবং পহেলা বৈশাখের মত হিন্দুয়ানী অনুষ্টানে অংশ নেয়া বৈধ হবে না।

সুতরাং কোন বিজয় দিবস, শহীদ দিবস ও স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান যদি শুধু শহীদদের কীর্তিগাঁথার আলোচনা ও দুআর অনুষ্ঠান হয়, তাহলে তাতে অংশ নিতে কোন সমস্যা নেই।

কিন্তু সংস্কৃতি অনুষ্ঠানের নামে গান বাজনার অনুষ্ঠান হলে তাতে অংশ নেয়া বৈধ হবে না।

পহেলা বৈশাখের অনুষ্ঠানে অংশ নেয়া কিছুতেই বৈধ নয়। কারণ তা হিন্দুয়ানী অনুষ্ঠান।

কোন মুসলমানের জন্য বিধর্মীদের ধর্মীয় উৎসবে যোগদান বৈধ নয়।

لان طاعة الإمام فيما ليس بمعصية فرض، (الدر المختار مع الشامى-6/416)

وفى الشامية: طاعة الإمام فيما ليس بمعصة واجبة، (رد المحتار-3/53

পহেলা বৈশাখ সম্পর্কে জানতে হলে পড়ুন- পহেলা বৈশাখ উদযাপনঃ আত্মমর্যাদাহীন পরগাছা জাতির পরিচায়ক

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তালীমুল ইসলাম ইনষ্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম সালেহপুর, আমীনবাজার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

 

Print Friendly, PDF & Email
বিস্তারিত জানতে ছবির উপর টাচ করুন

এটাও পড়ে দেখতে পারেন!

সন্তান জানাযা পড়ালে মৃত পিতার কোন ফায়দা হয়?

প্রশ্ন From: আব্দুল বাতেন বিষয়ঃ জানাজার নামাজ প্রশ্নঃ ছেলে যদি মৃত পিতার জানাজা নামাজের ইমামতি …