হোম / অজু/গোসল/পবিত্রতা/হায়েজ/নেফাস / পেশাব কাপড়ে লেগে যাবার সংশয় মনে কাজ করলে করণীয় কী?

পেশাব কাপড়ে লেগে যাবার সংশয় মনে কাজ করলে করণীয় কী?

প্রশ্ন

আসসালামু আলাইকুম।আমার নাম শামীম।আমি খুব দ্বিধায় ভুগছি আর সেটা হলো আমি পশ্রাব করার পর সঠিকভাবে পবিত্রতা অর্জন করতে পারছি কিনা। যেটা বলতে চাচ্ছি পশ্রাব চুল পরিমাণ কাপড়ে লেগে যাওয়ার ভয় সব সময় কাজ করছে। এমন অবস্থায় আপনার পরামর্শ চাচ্ছি।

উত্তর

وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته

بسم الله الرحمن الرحيم

অহেতুক সন্দেহ একটি রোগ। মনে সন্দেহ সৃষ্টি করে শয়তান মানুষকে ইবাদত থেকে বিতৃষ্ণ করার হীন চেষ্টা করে থাকে। তাই অহেতুক সন্দেহ বাতিকতা থেকে মুক্ত থাকতে সদা সচেষ্ট থাকতে হবে।

পেশাব শেষ করার পর স্বাভাবিকভাবে পেশাব পুরোপুরি ঝরে যাবে যতটুকু সময় বসে থাকলে মনে হবে ততটুকু সময় বসে থাকবে। এর পরিমাণ সর্বোচ্চ ৩ থেকে ৪ মিনিট। প্রয়োজনে টিস্যু ব্যবহার করুন বা ঢিলা ব্যবহার করে একটু দাঁড়াতে পারেন। এরপর পানি ব্যবহার করে চলে আসুন। মনের মাঝে যতই সন্দেহ আসুক যে, আপনি পবিত্র হননি। পেশাব ঝড়ছে ইত্যাদি বিষয়কে মোটেও পাত্তা দিবেন না। ইনশাআল্লাহ এ ধীরে ধীরে এ রোগ কেটে যাবে।

সন্দেহকে প্রশ্রয় দিলেই তা ধীরে ধীরে ভয়াবহ আকার ধারণ করবে।

عَطَاءُ بْنُ أَبِي مَيْمُونَةَ قَالَ: سَمِعْتُ أَنَسَ بْنَ مَالِكٍ، يَقُولُ كَانَ النَّبِيُّ صَلَّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ «إِذَا خَرَجَ لِحَاجَتِهِ، أَجِيءُ أَنَا وَغُلاَمٌ، مَعَنَا إِدَاوَةٌ مِنْ مَاءٍ، يَعْنِي يَسْتَنْجِي بِهِ»

আতা বিন আবী মাইমুনা বলেন, আমি শুনেছি আনাস বিন মালিক রাঃ বলেছেন, রাসূল সাঃ যখন প্রয়োজন সম্পন্ন [টয়লেটে যাবার জন্য] করার জন্য বের হতেন, তখন আমি ও আরেক ছেলে আসতাম। আমাদের সাথে পানির পাত্র থাকতো। অর্থাৎ এ দিয়ে রাসূল সাঃ ইস্তিঞ্জা করতেন। {বুখারী, হাদীস নং-১৫০}

عَنْ عِيسَى بْنِ يَزْدَادَ الْيَمَانِيِّ، عَنْ أَبِيهِ، قَالَ: قَالَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ: «إِذَا بَالَ أَحَدُكُمْ فَلْيَنْتُرْ ذَكَرَهُ ثَلَاثَ مَرَّاتٍ

হযরত ঈসাব বিন ইয়াযদাদ আলইয়ামানী তার পিতা থেকে বর্ণনা করেন। রাসূল সাঃ ইরশাদ করেছেন, যখন তোমাদের কেউ পেশাব করে, তখন সে যেন তার লজ্জাস্থানকে তিনবার ঝেড়ে নেয়। {সুনানে ইবনে মাজাহ, হাদীস নং-৩২৬}

وَمَنْ اسْتَجْمَرَ فَلْيُوتِرْ، مَنْ فَعَلَ فَقَدْ أَحْسَنَ، وَمَنْ لَا فَلَا حَرَجَ،

যে ব্যক্তি ঢিলা ব্যবহার করে সে যেন বেজোড় ব্যবহার করে। যে তা করবে সে উত্তম কাজ করল, আর যে করেনি তাতে কোন সমস্যা নেই। {সুনানে আবু দাউদ, হাদীস নং-৩৫}

আগে প্রকাশিত এ প্রশ্নোত্তরটিও পড়তে পারেনঃ 

পেশাব থেকে পবিত্র হওয়া নিয়ে ওয়াসওয়াসা থাকলে করণীয় কী?

والله اعلم بالصواب
উত্তর লিখনে
লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

পরিচালক-তালীমুল ইসলাম ইনষ্টিটিউট এন্ড রিসার্চ সেন্টার ঢাকা।

উস্তাজুল ইফতা– জামিয়া কাসিমুল উলুম সালেহপুর, আমীনবাজার ঢাকা।

ইমেইল– ahlehaqmedia2014@gmail.com

         

Print Friendly, PDF & Email

এটাও পড়ে দেখতে পারেন!

অনির্ধারিত কাযা রোযার ফিদিয়া কিভাবে আদায় করবে?

প্রশ্ন আসসালামু আলাইকুম সম্মানিত শায়খ, আশা করি আল্লাহর রহমতে ভালো আছেন।আমার কিছু প্রশ্ন ছিলো। দয়া …